কলারোয়ায় জাতীয় শোক দিবসের প্রস্তুতি সভায় আসাদুজ্জামান তুহিন

Share It
  • 14
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
    14
    Shares

কলারোয়া প্রতিনিধি÷ সাতক্ষীরার কলারোয়ায় জাতীর পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ৪৫তম শাহাদাৎ বার্ষিকী ও জাতীয় শোক দিবস উৎযাপন উপলক্ষে প্রস্তুতি সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। বৃহস্পতিবার (৬ই আগস্ট) বিকাল সাড়ে ৫টার দিকে উপজেলা ও পৌর আওয়ামী লীগের আয়োজনে উপজেলা পরিষদ অডিটোরিয়ামে এ প্রস্তুতি সভা অনুষ্ঠিত হয়।

উপজেলা আওয়ামীলীগের সহ সভাপতি সাবেক চেয়ারম্যান সম মোর্শেদ আলী ভিপির সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথী হিসাবে উপস্থিত থেকে বক্তব্য রাখেন উপজেলা চেয়ারম্যান আমিনুল ইসলাম লাল্টু। এ সময় তিনি বলেন, একাত্তর সালের পনের আগস্ট বাঙালী জাতীয় অবিসংবাদিত নেতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান সহ তার পরিবারকে নির্মম ভাবে হত্যা করে বাংলাদেশের নাম চিরতরে মুছে দিতে চেয়েছিল ঘাতকরা। কিন্তু তারা সেটা করতে পারেনি। কারন বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে সপরিবারে হত্যা করা হলেও তার স্বপ্নকে হত্যা করতে পারেনি ঘাতকরা। তার স্বপ্ন আজ বাস্তবায়িত করতে সুযোগ্য কন্যা শেখ হাসিনা সরকার নিরালস ভাবে দেশের মানুষের জন্য কাজ করে যাচ্ছেন। আমরা সেই স্বাধীন জাতীয় যে জাতী কখনো অপশক্তির কাছে মাথা নত না করে বীরত্বের সাথে লড়াই করে গেছেন। জাতীর পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ছাত্র অবস্থায় থেকেই মানুষের জন্য নিবেদিত প্রাণ ছিলেন।

তার জীবনাদর্শ বিশাল। ভাষা আন্দোলনের সময় রাজপথে আন্দোলন করতে গিয়ে বঙ্গবন্ধু জেলে যান। তারপর ৬ই দফা, ‘৬৯ এর গণঅভ্যুত্থান, ‘৭০ এর নির্বাচন এবং সর্বশেষ ‘৭১ এর মুক্তিযুদ্ধে বাঙালী ঝাঁপিয়ে পড়েন তার নিদর্শনায়। ৭ই মার্চের তার সেই অমোঘ বাণী “এবারের সংগ্রাম, আমাদের মুক্তির সংগ্রাম এবারের সংগ্রাম, স্বাধীনতার সংগ্রাম”। তার সেই সংগ্রামের সুফল আজ আমরা পাচ্ছি। স্বাধীন জাতী হিসেবে বিশ্বের বুকে মাথা উঁচু করে দাঁড়াতে পেরেছি। বঙ্গবন্ধু বেঁচে থাকলে আমরা অনেক আগেই সমৃদ্ধশালী সোনার বাংলা গড়তে পারতাম। আমিনুল ইসলাম লাল্টু আরোও বলেন, বর্তমানে তারই সুযোগ্য কন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এই বৈশ্বিক মহামারি করোনার মধ্যেও অর্থনীতিকে চাঙ্গা করার জন্য নানাবিধ উদ্যোগ গ্রহণ করেছেন। তার সুযোগ্য নেতৃত্বে সমৃদ্ধশালী সোনার বাংলা গড়ে তুলতে সবাইকে সকল ভেদাভেদ ভুলে দেশপ্রেমে উদ্বুদ্ধ হয়ে ঐক্যবদ্ধভাবে কাজ করার আহ্বান জানিয়ে ‘শোক হোক শক্তি শোকের মাসে এ অঙ্গীকার ব্যক্ত করে তিনি ।

উপজেলা আওয়ামীলীগের সাবেক সাংগাঠনিক সম্পাদক রবিউল আলম মল্লিকের উপস্থাপনায় অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথী হিসাবে বক্তব্য রাখেন উপজেলা আওয়ামীলীগের সাবেক আহবায়ক সাজেদুর রহমান খাঁন চৌধুরী মজনু, উপজেলা আওয়ামীলীগের সহ সভাপতি শেখ জাকির হোসেন, অধ্যাপক আমজাদ হোসেন, উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারন সম্পাদক আলিমুর রহমান, পৌর আওয়ামীলীগের সভাপতি আজিজুল ইসলাম, উপজেলা যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক আসাদুজ্জামান তুহিন ও বিআরডিবি’র চেয়ারম্যান মশিয়ার রহমান বাবু প্রমুখ। এছাড়া অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন পৌর কাউন্সিলার রফিকুল ইসলাম, জাতীয় শ্রমিক লীগের সভাপতি আব্দুর রহিমসহ উপজেলার ১২টি ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সভাপতি/সাধারণ সম্পাদকসহ অঙ্গ সংগঠনের নেতৃবৃন্দ। সভায় কেন্দ্রীয় কমান্ডের সিদ্ধান্ত অনুযায়ী স্বাস্থ্য বিধি মেনে স্ব-স্ব ইউনিয়নে ১৫ই আগস্টের সকল কর্মসূচী পালিত হবে বলে সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।


Share It
  • 14
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
    14
    Shares

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here