যশোর প্রতিনিধি: যশোর কেশবপুরে মঙ্গলবার দুপুরে রুকাইয়া খাতুন (২০) নামের এক নারী বিষপানে আত্মহত্যা করেছেন। থানা পুলিশ লাশ হেফাজতে নিয়েছে। এ ঘটনায় কেশবপুর থানায় একটি অপমৃত্যু মামলা হয়েছে।

পুলিশ ও এলাকাবাসী জানায়, উপজেলার মাদারডাঙ্গা গ্রামের ওয়াজেদ আলীর মেয়ে রুকাইয়া খাতুন পারিবারিক কলহে মঙ্গলবার দুপুরে বিষপানে আত্মহত্যা করেছেন। পরিবারের লোকেরা তাকে দ্রুত কেশবপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন। থানা পুলিশ লাশ তার হেফাজতে নিয়ে ময়না তদন্তের জন্য যশোর মর্গে প্রেরণ করেছেন। অপর দিকে, একই দিন উপজেলার ব্যাসডাঙ্গা গ্রামের কালু গাজীর ছেলে মানুষিক ভারসম্যহীন আবুল কাশেম (৭৮) বাড়ির পাশে লেবু গাছের ডালে গলায় গামছা পেঁচিয়ে আত্মহত্যা করে। থানা পুলিশ লাশ হেফাজতে নিয়েছে।পরিবারের কাছ থেকে কোন অভিযোগ না থাকায় তাঁর লাশ পরিবারের নিকট হস্তান্তর করা হয়েছে।

এ ব্যাপারে কেশবপুর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) জসীম উদ্দীন জানান, রুকাইয়া খাতুনের মৃত্যু সঠিক কারণ নির্ণয়ের জন্য লাশ ময়না তদন্তের জন্য যশোর মর্গে প্রেরণ করেছেন। মানুষিক ভারসম্যহীন আবুল কাশেমের পরিবারের কাছ থেকে কোন অভিযোগ না থাকায় তাঁর লাশ পরিবারের নিকট হস্তান্তর করা হয়েছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here