টাঙ্গাইলে ভূঞাপুরে সরকারি আদেশ অমান্য করে চলেছে প্রাইভেট কোচিং সহ বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠান

Share It
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

মো:দুলদুল হোসেন রাজু/ভুঞাপুর,টাংগাইল প্রতিনিধি:
টাঙ্গাইলের ভূঞাপুর উপজেলায় করোনা ভাইরাসের সংক্রমণ প্রতিরোধে সরকারী নির্দেশনা মতে সকল শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বন্ধ রাখা ঘোষণার পর থেকে সকল শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বন্ধ থাকে। তবে এ নির্দেশনাকে উপেক্ষা করে প্রাইভেট টিউশনি ও কিছু কিন্ডারগার্টেন গুলো আজ ১৮ মার্চ (বুধবার) সকাল থেকে ক্লাস কার্যক্রম চালু রেখেছে।
গত ১৬ মার্চ (সোমবার) সচিবালয়ে অনুষ্ঠিত এক বৈঠকে করোনা ভাইরাস নিয়ে উদ্ভুত পরিস্থিতির কারণে আগামী ৩১ মার্চ পর্যন্ত দেশের সব শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত নেয়। ঘোষণার পরদিন করোনা ভাইরাস সংক্রমণ রোধে মানুষকে কিছুটা সচেতন থাকতে দেখা যায়। যার ফলে জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী খুব ছোট পরিসরে পালন করে দেশের সর্বস্তরের মানুষ। মুক্তিযোদ্ধা সংসদ, সরকারী, বেসরকারি, রাজনৈতিকসহ সকল শিক্ষা প্রতিষ্ঠান এই নির্দেশনা মেনে দিনটি উদযাপন করে। যদিও নির্দেশনা অমান্য করে উপজেলার ভূঞাপুর সরকারী পাইলট উচ্চ বিদ্যালয় ছাত্র ও শিক্ষকরা মিলে র‌্যালি করে।
এদিকে ঘোষণার ২য় দিন বুধবার সকাল থেকে দেখা গেছে উপজেলায় স্বাভাবিক ভাবেই চালু রয়েছে শিক্ষা কার্যক্রম। পৌর এলাকার প্রাইভেট টিউশনি ও কিছু কিন্ডারগার্টেন তাদের নির্ধারিত ক্লাস কার্যক্রম পরিচালনা করেছে। প্রতিদিনের মত সকাল ৬টা থেকেই শিশু শ্রেণী থেকে শুরু করে কলেজের শিক্ষার্থীরা নিয়মিত হাজির হয়েছে তাদের শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে।
প্রাথমিক, নিম্ন ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষার্থীদের সাথে কথা বলে জানা গেছে তারা অনেকেই এই করোনা ভাইরাস সম্পর্কে এতটা সচেতন নয়। তারা আরো জানায় তাদের শিক্ষক বা অভিভাবকরা তাদেরকে অভয় দিয়ে জানিয়েছেন এই রোগ বয়স্কদের জন্য। তরুণদের জন্য নয়। আর এটি আমাদের দেশের মত গ্রীষ্ম বা গরম আবহাওয়াতে ছড়ায় না।
এবিষয়ে নার্সারি শ্রেণীর এক শিক্ষার্থীর অভিভাবক স্বপ্না খাতুন বলেন, সকালে স্কুলে গেলে আমাদেরকে ৩১ মার্চ পর্যন্ত স্কুল বন্ধ বলে জানিয়ে দেয়। এরকম বিনা নোটিশে হঠাৎ তারা কিভাবে স্কুল বন্ধ করতে পারে বুঝলাম না। এইসব ভাইরাস আমাদের মফস্বল এলাকায় তো আসেনি। এভাবে যে কোন অজুহাতে স্কুল বন্ধ করলে বাচ্চার লেখাপড়া নিয়ে বেশ শঙ্কায় আছি।

Share It
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here