রোহিঙ্গাদের নিয়ে ভূয়া ছবি ছাপানোয় ক্ষমা চাইল মিয়ানমার সেনাবাহিনী

Share It
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

ছবি-রয়টার্স
ভূয়া ছবি দিয়ে রোহিঙ্গাদের নিয়ে মিথ্যাচারের জন্য শেষ পর্যন্ত ক্ষমা চাইলো মিয়ানমার সেনাবাহিনী। মিয়ানমার সেনাবাহিনীর মুখপত্র ‘দ্য মিয়াওয়াদি ডেইলি’ সোমবার ‘মিয়ানমার পলিটিকস অ্যান্ড দ্য টাটমাডো: পার্ট ওয়ান’ শিরোনামের বইটিতে প্রকাশিত দুটি ছবির জন্য ক্ষমা চেয়েছে। খবর রয়টার্সের।
ওই বইতে বাংলাদেশের মুক্তিযুদ্ধ ও রুয়ান্ডার হুতি শরণার্থীদের দুটি ছবিকে রোহিঙ্গা বিষয়ক ঐতিহাসিক ছবি হিসেবে ছাপায় মিয়ানমার সেনাবাহিনীর। যার একটি হলো- একাত্তরে বাংলাদেশের মুক্তিযুদ্ধের সময় বুড়িগঙ্গা নদীতে ভাসমান লাশের ঐতিহাসিক ছবি। বইতে ওই ছবিটিকে ১৯৪০-এর দশকে বৌদ্ধদের বিরুদ্ধে রোহিঙ্গাদের হত্যাযজ্ঞের ছবি বলে উল্লেখ করা হয়েছে। আরেকটি হলো- রুয়ান্ডার হুতি শরণার্থীদের তানজানিয়া যাত্রার ছবি। ওই ছবিটিকে ব্রিটিশ উপনিবেশের পর বাঙালিদের (রোহিঙ্গা) মিয়ানমারে রাখাইনে প্রবেশের ছবি হিসেবে উল্লেখ করা হয়।
গত ২৭ আগস্ট জাতিসংঘের প্রতিবেদনে রোহিঙ্গা নিপীড়নকে মিয়ানমারের জেনারেলদের গণহত্যা হিসেবে মন্তব্যের পরপরই এই দুটি ছবি ছাপানো হয়েছিল। পরে মিয়ানমার সেনাবাহিনীর প্রকাশিত ওই বইতে প্রকাশিত ছবিতে মিথ্যাচার সম্পর্কিত প্রতিবেদন প্রকাশ করে রয়টার্স।
মিয়ানমার সেনাবাহিনীর মুখপাত্র বলেন, ‘ছবি দুটি ভুল ছাপা হয়েছে। ওই ভুলের জন্য আমরা পাঠক ও ছবির স্বত্বাধিকারীদের কাছে আন্তরিকভাবে ক্ষমা চাইছি।’
গত জুলাইতে ‘মিয়ানমার পলিটিকস অ্যান্ড দ্য টাটমাডো: পার্ট ওয়ান’ শিরোনামে ১১৭-পৃষ্ঠার বইটি প্রকাশ করেছে মিয়ানমার সেনাবাহিনীর জনসংযোগ ও মনস্তাত্ত্বিক যুদ্ধ বিভাগ। মিয়ানমারের বাণিজ্যিক রাজধানী ইয়াঙ্গুনের প্রধান বইয়ের দোকানগুলোতে বিক্রি হচ্ছে বইটি।

Share It
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here