লালমনিরহাটে করোনায় প্রাণ হারালেন এক ইউপি চেয়ারম্যান

Share It
  • 161
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
    161
    Shares

 

পরিমল চন্দ্র বসুনিয়া,লালমনিরহাট প্রতিনিধি:

 

পরিমল চন্দ্র বসুনিয়া,লালমনিরহাট প্রতিনিধি:

প্রাণঘাতী ভাইরাস করোনায় আক্রান্ত হয়ে লালমনিরহাটে আরও এক ইউনিয়ন পরিষদের (ইউপি) চেয়ারম্যানের মৃত্যু হয়েছে। তার নাম খ ম শফিকুল আলম খন্দকার (খোকা)। তিনি লালমনিরহাটের কালীগঞ্জ উপজেলার দলগ্রাম ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান।

বৃহস্পতিবার রাত সাড়ে ১২টায় চিকিৎসাধীন অবস্থায় রংপুর ডেডিকেটেড করোনা আইসোলেশন হাসপাতালে মারা যান তিনি। এ নিয়ে লালমনিরহাট জেলায় করোনায় আক্রান্ত হয়ে তিনজন ইউপি চেয়ারম্যানের মৃত্যু হলো। করোনার শুরু থেকে খাদ্য সহায়তাসহ মাঠ পর্যায়ে সক্রিয়ভাবে কাজ করে গেছেন তারা।

শফিকুল আলমের বড় ছেলে মোফাখারুল ইসলাম রাসেল মৃত্যুর বিষয়টি নিশ্চিত করেন বলেন, হার্ট অ্যাটাক করলে তার বাবা শফিকুলকে রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। পরে জ্বর-সর্দি দেখা দিলে ২২ আগস্ট করোনা নমুনা সংগ্রহ করে পাঠানো হলে করোনার ফলাফল পজেটিভ আসে। পরে তাকে রংপুর ডেডিকেটেড করোনা হাসপাতালে নেয়া হয়। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় বৃহস্পতিবার রাতে মারা যান তিনি।

শফিকুল আলম খন্দকার (খোকা) জাতীয় পার্টি থেকে গত ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে আওয়ামী লীগে যোগদান করে তৃতীয়বারের মত চেয়ারম্যান নির্বাচিত হন। তার বাড়ি উপজেলার দলগ্রাম ইউনিয়নের গ্যাগরা গ্রামে। দুই ছেলে, এক মেয়েসহ অসংখ্য গুণগ্রাহী রেখে গেছেন তিনি।

লালমনিরহাটের সিভিল সার্জন ডা. নির্মলেন্দু রায় বিষয়টি নিশ্চিত করে জানান, করোনা আক্রান্ত হয়ে চিকিৎসাধীন রংপুর ডেডিকেটেড করোনা আইসোলেশন হাসপাতালে মারা যান শফিকুল আলম খন্দকার।

এর আগে করোনায় আক্রান্ত হয়ে গত ২১ আগস্ট হাতীবান্ধা উপজেলার গড্ডিমারী ইউনিয়ন চেয়ারম্যান আতিয়ার রহমান ও ২৩ আগস্ট পাটিকাপাড়া ইউনিয়ন চেয়ারম্যান শফিউল আলম রোকন মারা যান।


Share It
  • 161
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
    161
    Shares

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here