সংসদ সদস্য হাজী সেলিমের ছেলে ইরফানকে ওয়ার্ড কাউন্সিলর পদ থেকে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়েছে। মঙ্গলবার (২৭ অক্টোবর) রাষ্ট্রপতির আদেশক্রমে তাকে বরখাস্ত করে প্রজ্ঞাপন জারি করা হয়েছে।

ইরফান ঢাকা দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশনের ৩০ নং সাধারণ ওয়ার্ডের কাউন্সিলর ছিলেন।

মঙ্গলাবার (২৭ অক্টোবর) স্থানীয় সরকার ও পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রণালয়ের স্থানীয় সরকার বিভাগ থেকে এই প্রজ্ঞাপন জারি করা হয়েছে।

ওই প্রজ্ঞাপনে বলা হয়, নৌবাহিনী কর্মকর্তাকে মারধর, বিদেশি মদ সেবন, অবৈধ অস্ত্র রাখা, অবৈধ ওয়াকিটকি রাখা ও বিভিন্ন অপরাধে মামলা হওয়ায় স্থানীয় সরকার (সিটি কর্পোরেশন) আইন, ২০০৯ এর ধারা ২ (৩৭) এবং ও ১৩ (১) (খ) (ঘ) অনুযায়ী নৈতিক স্খলনজনিত অপরাধ এবং অসদাচরণের শামিল।

তাই অপরাধ ও অসদাচরণের অভিযোগে স্থানীয় সরকার আইন ২০০৯ এর ১২ উপধারা (১) অনুযায়ী প্রদত্ত ক্ষমতা বলে ঢাকা দক্ষিণ সিটি কপোরেশনের ৩০নং সাধারণ ওয়ার্ডের নির্বাচিত কাউন্সিলর পদ থেকে ইফরান সেলিমকে সাময়িক বরখাস্ত করার হল।

এর আগে, গত ২৫ অক্টোবর রাতে রাজধানীর কলাবাগান সিগনালে এমপি হাজী মো. সেলিমের ‘সংসদ সদস্য’ লেখা সরকারি গাড়ি থেকে নেমে নৌবাহিনীর কর্মকর্তা ওয়াসিফ আহমেদ খানকে মারধর করেন ডিএসসিসি ৩০ নম্বর ওয়ার্ড কাউন্সিলর ইরফান সেলিম। এ ঘটনায় সে রাতেই মামলা দায়েরের পর সোমবার পুরান ঢাকায় তার বাসায় অভিযান পরিচালনা করা হয়। অভিযানে ৩৮টি ওয়াকিটকি, বিদেশী মদও অস্ত্র উদ্ধার করে র‌্যাব। ইরফানকে ১৮ মাস ও তার দেহরক্ষী মো. জাহিদকে ছয় মাস কারাদণ্ড দেন র‌্যাবের ভ্রাম্যমাণ আদালত।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here