করোনার দুঃসময়ে জনগণের পাশে নেই রাজনৈতিক দলগুলো

Share It
  • 3
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
    3
    Shares

করোনাভাইরাস মহামারির এই দুঃসময়ে মাঠে একেবারেই অনুপস্থিত রাজনৈতিক দলগুলো। বরং সুবিধাবঞ্চিত মানুষ পাশে পাচ্ছে সেনাবাহিনী, পুলিশ এবং সরকারি-বেসরকারি বিভিন্ন সংস্থাকে। বিশেষজ্ঞরা বলছেন, মানুষের আস্থা অর্জন করতে কেন্দ্র থেকে তৃণমূল সবক্ষেত্রে জন সম্পৃক্ততায় ব্যর্থ রাজনৈতিক দলগুলো।

কোভিড উনিশের আঘাতে বিশ্বজুড়ে বিপর্যস্ত চিকিৎসা, অর্থনীতি ও সমাজব্যবস্থা। দেশেও প্রতিদিনই রেকর্ড ভাঙছে আক্রান্ত আর মৃতের সংখ্যা। হু হু করে বাড়ছে সংক্রমণ।

বিশাল জনগোষ্ঠী কর্মহীন হয়ে পড়ায় বাড়ছে দারিদ্রের হারও। অথচ এমন সময় জনগণ পাশে পাচ্ছে না রাজনৈতিক দলগুলোকে। প্রথম দিকে ত্রাণসহ কিছু তৎপরতা দেখা গেলেও সঙ্কট যতই ঘনীভূত হচ্ছে দলগুলোর নিষ্ক্রিয়তাও যেন তত বাড়ছে ।

এক সিএনজি অটোরিকশাচালক বলেন, যখন ভোট আসে তখন এই দল সেই দল, কত দলের লোকই তো আসে। কিন্তু এখন আর কেউ আসেন না।

এক দোকানদার বলেন, কেউ খোঁজও নিলো না; আমরা খেয়ে আছি নাকি না খেয়ে আছি।

যদিও নেতাদের দাবি সামর্থ্য অনুযায়ী জনগণের পাশে থাকছেন তারা।

বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য আমীর খসরু মাহমুদ চৌধুরী বলেন, আমরাই কিন্তু প্রথম লিফলেট বিতরণ করেছিলাম। তাতে সচেতনতার বিষয়গুলো ছিলো। এরপরে ত্রিশ লাখ মানুষের কাছে আমরা ত্রাণ সামগ্রী পৌঁছে দিতে পেরেছি।

আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য আবদুর রহমান বলেন, শুধু আমাদের দলের নেতাকর্মীরা তাদের নিজেদের উদ্যোগে প্রায় এক কোটি ২২ লাখ টাকার ত্রাণ দিয়েছে। সামর্থ্যর জায়গা থেকে এতটুকু ঘাটতি আমাদের কোনো নেতাকর্মীর মধ্যে নেই।

বৈশ্বিক এই মহামারীর মধ্যে রাজনৈতিক দলগুলোর এই জনসেবাবিমুখতা দলগুলোকে জনবিচ্ছিন্ন করার পাশাপাশি রাজনৈতিক দিউলিয়াত্বের দিকে ঠেলে দেবে বলে মত বিশ্লেষকদের।

রাজনৈতিক দলগুলোর এই নীরবতা জনগণ সহজভাবে নেয়নি বলে মত রাজনৈতিক বিশ্লেষক সৈয়দ মনজুরুল ইসলামের।

তিনি বলেন, যারা রাজনৈতিক দল পরিচালনা করেন তারা তো সংগ্রাম করেই এতদূর এসেছে। এই সংগ্রামে কেনো তারা পিছিয়ে পড়বে। এই বিষয়টাকে জনগণ ভালোভাবে নেয়নি। তৃণমূলের নেতাদের যেভাবে জনগণের পাশে দাঁড়ানোর কথা তেমনটা দেখা যাচ্ছে না। বরং লুটপাটের বিরাট একটা উৎসব যেনো চলছে।

জনপ্রতিনিধিরা সম্পৃক্ত হলে লকডাউন সফল হওয়ার পাশাপাশি ত্রাণ কার্যক্রমেও স্বচ্ছতা আসবে বলে মনে করেন বিশেষজ্ঞরা।


Share It
  • 3
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
    3
    Shares

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here